তিনটে মেয়ে

 

প্রথম মেয়েঃ তোর তাতে কি?

আমি তো আমার মতই আসবো যাবো, মন ছড়াবো

দুপুরবেলার ঝাঁ ঝাঁ রোদেও পা ফসকাবো, আছাড় খাবো

অন্ধ হাতে মাটির ঢেলায় রঙ চড়াবো, ভাসান দেবো

নদীর টানে সাত সমুদ্র পেরিয়ে যাবো, দিক হারাবো

 

দিব্বি কাটা চিঠির ভিতর শব্দ হবো, স্তব্ধ হবো

ভুল করে গান বাঁধতে গিয়ে স্লোগান দেবো, চিড় ধরাবো

আচমকা ওই পাষাণ বাড়ির দেওয়াল চিনে সিঁদ কাটাবো

শূন্য মানুষ একলা পেলে চিকন চাঁদের হাট বসাবো

 

চোখ খুলে যা যায়না দেখা, চোখ বুঝে সেই লোভ দেখাবো

যে ঘটনা আর ঘটেনা সেই অঘটন ফের ঘটাবো 

আসতে যেতে নাহয় কিছু অন্য রাতে রাত কাটাবো 

ডাইনে বাঁয়ে হাত বাড়িয়ে মানুষ ছোঁব, বন্ধু হবো

 

 

দ্বিতীয় মেয়েঃ নদীর দেহে 

জলের আদর চিনতে শিখে সাঁতার জানা মেয়ে

চুলের জটে পাথর বেঁধে নদীর দেহে নামছে

আগল খোলা বুক-পাতা রাত একলা চুপি চুপি

গোপন কথা শুনবে বলে গভীরে কান পাতছে 

 

মেয়ের চোখে তীরের মায়া ছায়ার পিছুটান

গর্ভে বেঁধা অতীত পাড়ে ঘর পোড়ানো গান

তবুও জলের আলিঙ্গনে সহস্র হাত মেলে

সাপের মত শরীরে তার জোয়ার ডেকে আনছে

নিষিদ্ধ এক মোহয় মেয়ে নদীর দেহে নামছে

 

বাকল খোলা গাছগুলো সব পারের উপর নুয়ে

চাইছে শুধু হাত বাড়িয়ে দেখতে তাকে ছুঁয়ে

মেয়ের চোখে অকুল পাথার নাভির কোলে ঢেউ

যোনির অমঘ বানভাসি তার সকল ডুবে যাচ্ছে

সর্বনাশা নেশায় নদী মেয়ের দেহে নামছে

তৃতীয় মেয়েঃ জাদুকরী

এক যে ছিল

স্বেচ্ছাচারী

অসংসারী

মন্ত্রবলে মানুষ খুঁজে খুঁড়ত কুয়ো

গাড়ত নোঙ্গর, জলের ভিতর

ছায়ার মত মিলিয়ে যেত 

অহংকারী

 

স্বেচ্ছাচারী

অসংসারী

সে ছিল এক

ইচ্ছানারী

                                         

                                                                                                             ছবি- কৌশিক সরখেল

শেয়ার করুন

2 thoughts on “তিনটে মেয়ে”

  1. Sreela Das Gupta

    Bhishon sundor. Absolutely love this. Love everything you write — and this is precious.

  2. Sarbari Dasgupta Gomes

    খুব সুন্দর । আইডেনফাই করছি । দারুণ ।

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *